Life style: Tips and Tricks

জীববিজ্ঞান ২য় পত্র গাজী আজমল pdf download । Biology 2nd paper Gazi Ajmal pdf download

আজকে আমরা আপনাদের কে জীববিজ্ঞান ২য় পত্র গাজী আজমল pdf download । Biology 2nd paper Gazi Ajmal pdf download লিংক দিবো। তাহলে শুরু করা যাক।

বইঃ জীববিজ্ঞান ২য় পত্র গাজী আজমল pdf download । Biology 2nd paper Gazi Ajmal pdf download

টাইপঃ জিববিজ্ঞান

সাইজঃ ২৩এম্বি

এক মেয়ে দীপা_ দীপাবলি, ভাগ্যের প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে নিরন্তর যুদ্ধের এক কাহিনি
চালচিত্রে যুক্ত হয়েছে উত্তর বাংলার চা বাগান, গাছগাছালি, আংরাভাসা নদী সেই সাথে পঞ্চাশের কলকাতা ও শহরতলী,কো-এডুকেশন কলেজ,মেয়েদের হোস্টেল,কফি হাউস,সমকালীন ছাত্র ও রাজনৈতিক আন্দলোনের ছবি।
উত্তরবঙ্গের ভাগ্যবিড়ম্বিত সেই মেয়ে-
শৈশবে যে মাকে হারিয়েছে এবং বাবা নিখোঁজ,দীর্ঘকাল পর্যন্ত মাসি আর মেসোমশাইকেই যে জেনে এসেছিলো মা আর বাবা বলে,,,দশ বছর বয়সে মাত্র বাহাত্তর ঘন্টার জন্য যার সিথিঁতে উঠেছিলো সিদুঁর আর হাতে শাখা নোয়া
দশবছর বয়স থেকেই যাকে অতিক্রম করতে হয়েছে
বিধবার জীবন
একের পর এক বাধা-বিপত্তি, কখনো বা দাঁড়াতে হয়েছে জীবনের অপ্রকাশিত অমোঘ সত্যের মুখোমুখি হয়ে।

কিন্তু দীপা কখনোই হাল ছাড়েনি।
এর পিছনে অবদান শুধু মাত্র তার মাস্টার মশাই আর আর বাবার
নিরন্তর এগিয়ে গিয়েছে ওর স্বপ্নের রেখা ধরে…..। পুরো উপন্যাস জুড়েই জীবনের বিভিন্ন ধাপে দীপাকে নিতে হয়েছে বেশ কিছু কঠিন সিদ্ধান্ত। সবচেয়ে খারাপ সময়টা দীপা পার করেছে, বাবা অমরনাথের এবং মাস্টার মশাই সত্যসাধন এর মৃর্ত্যুর পর, পারিবারিক দুর্যোগকালে, চা-বাগানের চাকরিটা ফিরিয়ে দিয়ে….। কিশোরী দীপার এই দৃঢ়চেতা আপোষহীন ব্যক্তিত্ব সত্যি মুগ্ধ করার মতো।
দীপার স্বপ্ন ছিলো আরও বড়, স্বপ্ন ছিলো এক উন্নত জীবনের।

স্বপ্নগুলো একসময় পূরণ হলেও কালগর্ভে হারিয়ে যায় ওর আশপাশের আপন সব মানুষ…ওর মা, ছোট দুইভাই, বন্ধু-বান্ধব,এমনকি ভালোবাসার মানুষজনও। অতুল, অমল, শমিত, অর্জুন…. একে একে জীবন থেকে বিদায় নেয়ার পর দীপা গাঁটছড়া বেধে সংসার শুরু করে অলোকের সাথে। কিন্তু জীবন সম্পর্কে ওদের দৃষ্টিভঙ্গি পারস্পরিক বিপরীত হওয়ায়, সে সংসারও বেশিদিন স্থায়িত্ব পায় না।
সমাজের সব শৃঙ্খলা, রীতিনীতি-র শিকল ভেঙ্গে জীবনের পথ বেয়ে দীপা এগিয়ে চলে একরাশ শূন্যতা হাতে নিয়ে……পাশে থেকে ওর সঙ্গী হয় আরেক শূন্য মানবী, দীপার বৃদ্ধা ঠাকুমা মনোরমা….।

*বই- দূরবীন
*লেখক- শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়
*প্রকাশক- আনন্দ পাবলিশার্স
*প্রকাশকাল-১৯৮৬
*পাতার সংখ্যা-৬১৬
*মূল্য-৮০০/=( কোলকাতা প্রিন্ট)
বড় বইয়ের রিভিউ লিখা আসলেই খুব কঠিন,রিভিউ ছোট হলে মনে হয় কিছু বাদ পড়ে গেলো আর বড় হলে মনে হয় বিরক্তিকর রিভিউ তবুও চেস্টা করলাম।
বইটাতে একই সাথে পাশাপাশি,একটা বংশের তিন প্রজম্মের পুরুষদের জীবনগাথা বর্ননা করা হয়েছে।যাদের প্রতি প্রজম্মের পুরুষের জীবনেই যেন রয়েছে অস্বাভাবিকতা।এক প্রজম্মের প্রতি অন্য প্রজম্মের যেমন রয়েছে প্রবল ভালোবাসা, তেমন রয়েছে চরম ঘৃনা। এত কিছু সত্তেও তাদের জীবন যাপনের জন্য একই সাথে বেড়ে ওঠার চিত্র গুলি বইটাতে তুলে ধরা হয়েছে।

See also  ৭ম শ্রেণীর গাইড pdf download । Class 7 Guide Book pdf Download

প্রথম পুরুষ, জমিদার হেমকান্ত চৌধুরি ছয় সন্তানের জনক অল্প বয়সে বিপত্নীক। স্ত্রী মারা গেলে সংসারের প্রতি আর তেমন কোন টান অনুভব করেননি তাই,আর দ্বিতীয় বিয়ে করেননি।ছোট ছেলেমেয়ে দুটি বিশাখা আর কৃষ্ণকান্ত তার কাছে থাকে। তার কাছে থাকলেও মানুষ হচ্ছে রঙ্গময়ীর কাছে, রঙ্গময়ীকেই মায়ের মত জানে।রঙ্গময়ী ছোটবেলা থেকেই এই বাড়িতে মানুষ, তাকে ঠিক কাজের লোক বলা চলেনা,হেমকান্তদের দুর সম্পর্কের আত্মীয়া।বিয়েশাদি করেনি হেমকান্তের চাইতে বয়সে ১০-১৫ বছরের ছোট হবে।এই রঙ্গময়ী হচ্ছে হেমকান্তের সংসারের সাথে যোগাযোগের একমাত্র সুত্র।

তার কাছ থেকেই ছেলেমেয়ের খোজ খবর নেন হেমকান্ত, আবার তার কাছেই নিজের সব কথা খুলে বলেন।হঠাৎ একটা ঘটনার কারনে হেমকান্ত যেন, আবারো জীবনের প্রতি টান অনুভব করেন এবং রঙ্গময়ীর আরো কাছাকাছি আসতে থাকেন।

গ্রামে গুজব চলতে থাকে হেমকান্ত আর রঙ্গময়ী কে নিয়ে।বড় ছেলেমেয়েরা লজ্জায় পড়ে যায় বাবার এই ভীমরতির খবর শুনে।এক সময় ছেলেমেয়েরা এসে ঘোষণা দেয় বাড়ি ছাড়া করতে হবে রঙ্গময়ীকে।
দ্বিতীয় পুরুষ জমিদার কৃষ্ণকান্ত,জমিদার হেমকান্ত চৌধুরির একেবারে ছোট সন্তান।ছোট বেলায় মা মারা যাওয়ায় পিসি রঙ্গময়ীর কাছে মানুষ। ছোট থেকেই দেখে এসেছে বাবা খুব গম্ভীর ধরনের মানুষ,তাই কখনো বাবাকে কাছ থেকে দেখার সুযোগ পাননি।

হঠাৎ করে একদিন কৃষ্ণকান্তের বাবা, হেমকান্ত তাকে ডেকে নিজের কাছে নিয়ে গিয়ে তাকে পড়ালেখার খোজ নেয়া শুরু করেন শরীর চর্চা শেখাতে থাকেন। হেমকান্ত যেন বাবাকে নতুন করে আবিস্কার করে।এমনিতেই ছোটবেলা থেকে মায়ের শাসন ছাড়া মানুষ কৃষ্ণকান্ত, তার উপর বাবার উপদেশে যেন জীবনকে নতুন করে ভাবতে শিখে।হঠাৎ একদিন কৃষ্ণকান্ত বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে গিয়ে স্বদেশীদের দলে নাম লেখায়।
তৃতীয় পুরুষ ধ্রুব চৌধুরি, সাবেক জমিদার কৃষ্ণকান্ত চৌধুরির একেবারে ছোট ছেলে।ধ্রুবকে আর জমিদার বলা চলেনা, এতদিনে জমিদারি পার্ট চুকে গেছে। তার বাবা কৃষ্ণকান্ত চৌধুরি সাবেক স্বদেশী আন্দোলনের কর্মী, এখন স্বাধীন ভারত দেশের রাজনীতির খুব বড় মাপের একজন নেতা।

সবাই কৃষ্ণকান্তের গুণগান করে, একমাত্র ছেলে ধ্রুব ছাড়া।ধ্রুব এমনিতে শিক্ষিত,স্মার্ট মানুষ হিসেবে যথেস্ট ভালো।কিন্ত বাবার উপর জেদ করে মদ খেয়ে মাতাল হয়ে রাস্তায় শুয়ে থাকে, পুলিশের সাথে মারামারি করে। বাবার মান সম্মান নষ্ট করার যথাসাধ্য চেস্টা ধ্রুব করে যাচ্ছে।কৃষ্ণকান্ত ছেলেকে মানুষ করার চিন্তা করে বিয়ে করান, ধ্রুব বউয়ের দিকে ফিরেও তাকায় না। তার বাবার নাম যেখানে যেখানে থাকবে ধ্রুব প্রকাশ্যে গালিগালাজ করে মহান এই নেতাকে।এক আজম্ম রাগ যেন মনের মধ্যে লালন করে যাচ্ছে বাবার বিরুদ্ধে। অবশেষে ভয়ংকর এক সিদ্ধান্ত নেন স্টেট মিনিস্টার কৃষ্ণকান্ত চৌধুরি।

See also  Panjeree guide for class 6 pdf download | পাঞ্জেরী গাইড class 6 pdf download

জীববিজ্ঞান ২য় পত্র গাজী আজমল pdf download । Biology 2nd paper Gazi Ajmal pdf download

Click here to download

ADR Dider

This is the best site for all types of PDF downloads. We will share Bangla pdf books, Tamil pdf books, Gujarati pdf books, Hindi pdf books, Urdu pdf books, and also English pdf downloads.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
You cannot copy content of this page